Home / মিডিয়া নিউজ / আল্লাহ বাঁচিয়ে নিয়ে এসেছেন এতেই আমি সন্তুষ্ট: সোহেল রানা

আল্লাহ বাঁচিয়ে নিয়ে এসেছেন এতেই আমি সন্তুষ্ট: সোহেল রানা

সাদা কালো পর্দার দূরদর্শী অভিনেতা সোহেল রানা। সাক্ষাৎ পাওয়া গেল অনেকদিন পর। বয়সের

ভারে অসুস্থতার কারণে ফিল্ম থেকে বিদায় নিয়েছেন প্রায় ৮ বছর। এখন সময় কাটছে

পরিবার-পরিজনকে নিয়েই। জানালেন শারীরিক অবস্থা খারাপ হওয়ার কারণেই অনেকদিন যাওয়া হয়না এফডিসিতে।

অভিনেতা, প্রযোজক ও পরিচালক সোহেল রানা। কয়েকদিন আগে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হন তিনি। তবে ধীরে ধীরে সুস্থ হয়ে উঠছেন তিনি। বর্তমানে তিনি বাসায় বিশ্রামে আছেন। আপনার শারীরিক অবস্থা কেমন? সোহেল রানা বলেন, সারাদিন বিশ্রাম নেওয়া ভালো নয়। তবে হাঁটা, কথা বলা বা চিন্তাভাবনা কোনোটাই ঠিকমতো কাজ করছে না মস্তিষ্ক। স্বাভাবিক হতে আরও সময় লাগবে। ২১শে ফেব্রুয়ারি ছিল আমার জন্মদিন।

কেমন কাটলো আপনার দিন, জবাবে অভিনেতা বলেন, আলহামদুলিল্লাহ। দিনটা ভালোই গেল। বিভিন্ন মাধ্যমে অনেকের কাছ থেকে শুভেচ্ছা পেয়েছি। সবচেয়ে বড় কথা আল্লাহ বাঁচিয়ে নিয়ে এসেছেন এতেই আমি সন্তুষ্ট। আপনি যখন হাসপাতালে ছিলেন তখন ভক্তরা আপনার সুস্থতার জন্য প্রার্থনা করেছিলেন। আপনি তাদের উদ্দেশ্য কি বলেন? এ প্রশ্ন করতেই নায়ক আবেগাপ্লুত হয়ে বলেন, তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানানোর ভাষা আমার নেই। কারণ আত্মীয়-স্বজন ও পরিচিতজনদের নামাজ পড়া স্বাভাবিক।

কারণ আমি জীবনে কখনো কারো ক্ষতি করিনি। কিন্তু আমার অনেক ভক্ত কোরআন খতম করে রোজা রেখেছেন। আমার দুই চোখের জল ছাড়া তাদের কিছুই আসে না। আমি শুধু কাঁদি। তারা আমাকে অনেক ভালোবাসে, আমি অবাক। তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতার শেষ নেই। একটু ভিন্ন প্রসঙ্গে আসি। চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির নির্বাচন ঘিরে তোলপাড়ের পরিবেশ তৈরি হয়েছে।

আপনি এটা কিভাবে দেখেন? সোহেল রানা বলেন, এসব কাজ ভালো যাচ্ছে না। এটা একটা কুৎসিত জিনিস। একটি ফুলকে পায়ের তলায় মাড়িয়ে যেমন নষ্ট হয়ে যায়, তেমনি সিনেমা হলকে খারাপ পর্যায়ে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। আমার কাছ থেকে দু-একটা কথা শোনার পর অনেকেই আমাকে ভুল বুঝে বলে যে আমি অমুককে সমর্থন করছি। আসলে, আমি আর এটি সমর্থন করার মতো বয়সী নই। যারা আছে, তারা সবাই আমার প্রিয়তম। আমি সাত-আট বছর চলচ্চিত্র ছেড়ে দিয়েছি।

যদি তারা মনে করে যে আমি একটি প্যানেলের পক্ষে কথা বলছি তা একটি ভুল ধারণা। আমি কারো পক্ষে কথা বলছি না। কিন্তু যা ঘটছে তাতে অসঙ্গতি দেখতে পাচ্ছি, এটুকুই বলেছি। তাদের হিংসার কারণে আমরা হাসছি। এই জিনিসগুলি খুব বেদনাদায়ক। সবাইকে বলব, আল্লাহর ওয়াস্তে যা সত্য তা মেনে নিন।

শিল্পী সমিতির নির্বাচন নিয়ে মনের ক্ষোভ প্রকাশ না করে থাকতে পারলেন না এই প্রবীন এবং জনপ্রিয় অভিনেতা। তিনি জানান, নির্বাচন কমিটির ভুলের কারণে আজকে এত অভিযোগের সম্মুখীন হতে হচ্ছে। প্রার্থী বাছাই করার পূর্বে তারা যদি যাচাই-বাছাই করে নিতো। তাহলে বর্তমান এই পরিস্থিতির সম্মুখীন আমাদের হতে হতো না। এখানে আমি কারও পক্ষ নিয়ে কথা বলছি না। এফডিসি বাঁচাতে হলে বর্তমানে যারা শিল্পী সমিতিতে আছেন তাদের সবাইকে নিজ নিজ জায়গা থেকে সৎ ভাবে কাজ করে যেতে হবে।

Check Also

চিত্রনায়ক রুবেলের কাছে পপি ‘স্পেশাল’!

ঢাকাই ছবিতে মার্শাল আর্ট ব্যবহার যার মাধ্যমে সেই চিত্রনায়ক রুবেল বাংলা ছবির দর্শকদের অনেক জনপ্রিয় …

Leave a Reply

Your email address will not be published.